Skip to content

শয়তান দূর করার আমল

মানুষের সাথে সদা সর্বদা লেগে আছে শয়তান। প্রতি মুহূর্তে সে চায় মানুষকে বিপথে পরিচালিত করতে। মানুষের ইহকাল ও পরকাল ধ্বংস করে দেয়াই তাঁর একমাত্র কামনা ও বাসনা। কারণ সে ত শপথ করে এসেছে মহান রাব্বুল আলামিন আল্লাহ তায়ালার সাথে যে মানুষকে সে সর্বদাই বিপথগামী করবে।
মানুষের চলার পথে বিছিয়ে রাখবে গোনাহের কণ্টকাকীর্ণ পথ। ঈমানের পথে, সত্য ও সুন্দরের পথে, ন্যায়ের পথে তাকে থাকতেই দিবে না। এ ব্যপারে শয়তান অঙ্গীকারাবদ্ধ।

কিন্তু মানুষ আল্লাহর সেরা জীব। তাঁর আছে ইচ্ছাশক্তি। চাইলে সে নিজেকে বিপথগামী করতে পারে, আবার চাইলে আল্লাহর রজ্জুকে ধরে রাখতে পারে। শয়তানের বহুমুখী জাল থেকে কি করে বাঁচবে মানুষ? যখন কোন সমস্যা দেখা দেয়, তাঁর সমাধানের জন্য নিশ্চয়ই কোন না কোন উপায়ও থাকে।
শয়তান থেকে বাঁচার জন্য খুব সহজ একটা আমল হচ্ছে, আয়াতুল কুরসী। পাঁচ ওয়াক্ত ফরজ নামাজের পর একবার করে কেউ যদি আয়াতুল কুরসী পাঠ করে, তবে কোনও শয়তান তাঁর ধারে কাছেও ঘেঁষতে পারে না। এমনকি কোনও দুষ্ট জিনও নয়। তাই বাচ্চাদের এই আমল করার জন্য উৎসাহিত করা উচিত। এবং নিজেও এটার ইহতিমাম করা দরকার। তাহলে মানুষ শয়তান ও দুষ্ট জিনের আক্রমন থেকে বেঁচে থাকবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: