Skip to content

ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে পাঁচটি প্যাক

দেখতে দেখতে শীত এসে গেলো। এমন আবহাওয়ায় ত্বকের একটু-আধটু সমস্যা যেন একেবারেই অপরিহার্য। তবে, আপনি চাইলে এই সমস্যাগুলো খুব সহজেই দূর করতে পারেন। এজন্য আপনাকে পার্লারে যেতে হবে না। ঘরে বসেই তৈরি করে নিতে পারেন বেশ কিছু অসাধারণ প্যাক, যা আপনার ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ানোর পাশাপাশি ত্বকের সমস্যা দূর করবে। চলুন জেনে নেয়া যাক এমন কিছু ফেসপ্যাক সম্পর্কে:

১‌। অ্যালোভেরা ও হলুদের মিশ্রণ

অ্যালোভেরার বাংলা নাম হচ্ছে ঘৃতকুমারী। বহুলভাবে প্রচলিত এই ভেষজ উপাদানটি চিকিৎসার জন্য প্রাচীনকাল থেকে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। ত্বকের জন্য অ্যালোভেরার রস খুব উপকারী। অ্যালোভেরা ত্বকের পিএইচ ব্যালেন্সকে ঠিক করে, ত্বকের উপরের মরা কোষ দূর করে এবং মরা কোষের নিচে উজ্জ্বল কোমল ত্বককে বের করে আনতে সাহায্য করে। আর হলুদের এন্টি ব্যাকটেরিয়াল ও এন্টিফাঙ্গাল প্রপার্টিসমূহ ত্বকের উপরিভাগের চর্মরোগ দূর করতে সাহায্য করে এবং ত্বককে উজ্জ্বল করে তোলে।

এই প্যাকটি বানাতে আপনাকে এক চামচ অ্যালোভেরার জেলের সাথে এক চিমটি হলুদের গুঁড়া মিশাতে হবে। মেশানো হয়ে গেলে পুরো মুখে এই প্যাকটি লাগিয়ে নিন। ২ থেকে ৩ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে হালকা হাতে মেসেজ করে তুলে ফেলুন। নিয়মিত ব্যবহারে এই প্যাকটি আপনার মুখের অবাঞ্ছিত লোম এবং দাগসহ সব ধরনের সমস্যা দূর করবে।

honey-3

টেবিলে জারের ভিতর রাখা খাঁটি মধু

২। বেসন, মধু আর হলুদের ফেস প্যাক

ডাল জাতীয় শস্যের মিহি গুড়া ত্বকের জন্য এমনিতেই উপকারী। এর সংগে যদি মধু আর হলুদ গুড়া আর লেবুর রস যুক্ত হয়, তাহলে ত কথাই নেই। এই প্যাকটি বানাতে আপনার লাগবে ২ চা চামচ বেসন, ১ চামচ মধু, ১/৪ চা চামচ হলুদ গুঁড়া, ১/২ চা চামচ লেবুর রস। মিশ্রণটি এমনভাবে তৈরি করুন যাতে কোনও বাড়তি দানা না থাকে। এবার প্রথমে ফেসওয়াশ দিয়ে মুখ পরিষ্কার করে নিন। তারপর আলতো করে মুছে নিয়ে মুখে লাগান। ২০ মিনিট পর প্যাকটি কিছুটা শুকিয়ে গেলে কুসুম গরম পানিতে মুখ ধুয়ে নিন। এরই সঙ্গে আপনি পেয়ে যাবেন উজ্জ্বল আর কোমল ত্বক।

৩। টকদই ও মধুর ফেসপ্যাক

টকদই মুখের লোমকূপের ময়লা দূর করে মুখকে মসৃণ ও কোমল করতে সাহায্য করে। এই প্যাকটি বানাতে আপনার কেবল দুটি উপাদান লাগবে। এক চামচ মধু ও এক চামচ টকদই। টকদইয়ে থাকা ভিটামিন বি, জিঙ্ক ও ক্যালসিয়াম আপনার ত্বকের কালো দাগ দূর করে ত্বককে উজ্জ্বল করতে সাহায্য করবে। এছাড়াও ত্বকের রক্ত চলাচল বৃদ্ধি করে ত্বকে ফুটিয়ে তুলবে গোলাপি আভা। ত্বকের মরা কোষ দূর করে প্রাকৃতিকভাবে উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করতে এই প্যাকটি ব্যবহার করুন।

৪। মধু ও চায়ের লিকারের তৈরি ফেসপ্যাক

মধু আর চায়ের লিকারের সঙ্গে সামান্য চালের গুঁড়ার মিশ্রণ আপনার ত্বকে এনে দিতে পারে অসাধারণ উজ্জ্বলতা। এজন্য আপনাকে প্রথমে এক কাপ ঠান্ডা চায়ের লিকার তৈরি করে নিতে হবে। এবার এই মিশ্রণ থেকে পরিমাণমত লিকার নিয়ে এর সঙ্গে ২ টেবিল চামচ চালের গুঁড়া এবং ১/২ চা চামচ মধু মিশিয়ে প্যাক তৈরি করে নিন। চালের গুঁড়া খুব ভালো এক্সফলিয়েটর হিসেবে কাজ করে এবং মধু ত্বক ময়েশ্চারাইজ করে ও নরম করে তুলতে সাহায্য করে। এই মিশ্রণ লাগানো শেষে ১০-১৫ মিনিট অপেক্ষা করে পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

৫। আপেল ও মধুর প্যাক

খোসা ছাড়ানো একটি আপেল পাতলা করে কুচি কুচি করে কেটে নিন। এর সাথে এক টেবিল চামচ মধু মেশান। হাত দিয়ে চটকে মিহি পেস্ট তৈরি করে নিন। এ কাজে চাইলে হামান দিস্তাও ব্যবহার করতে পারেন। এবার এই প্যাকটি ত্বকে লাগান এবং ১০-১৫ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে পর্যাপ্ত পরিমান পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। নিয়মিত ব্যবহারে ত্বক হয়ে উঠবে উজ্জ্বল ও কোমল।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: