Skip to content

কিভাবে বানাবেন কে এফ সি স্টাইলে চিকেন ফ্রাই

কেএফসি স্টাইলে চিকেন ফ্রাই

চিকেন ফ্রাই পছন্দ করে না এমন মানুষ খুব কমই আছে। আজ আমরা কেএফসি স্টাইলে চিকেন ফ্রাই তৈরি করার একটি রেসিপি শেয়ার করবো, যা অনুসরণ করে আপনি অতি সহজেই মুচমুচে স্বাদের জুসি চিকেন ফ্রাই বানাতে পারবেন। চলুন জেনে নেই রেসিপিটি বানাতে আমাদের কি কি লাগবে এবং কিভাবে বানাবো।

কেএফসি স্টাইলে চিকেন ফ্রাই রেসিপি বানাতে আমাদের নিচের উপকরণগুলো লাগবে।

উপকরণঃ

১.চিকেন- ১০পিস

২.রসুন বাটা- ১টেবিল চামচ

৩.আদা বাটা- ১টেবিল চামচ

৪.সয়া সস- ২টেবিল চামচ

৫.ফিশ সস-১ টেবিল চামচ

৬.মরিচ গুরা- ১চা চামচ

৭.লবণ -১/২ টেবিল চামচ

৮.কালো মরিচ গুঁড়া -১ চা চামচ

৯.মিস্কড হার্বস – ১/২ টেবিল চামচ

১০.দুধ – ১কাপ

১১.সাদা সিরকা- ১টেবিল চামচ

১২.ডিম- ১পিস

১৩.কর্ণফ্লাওয়ার – ১বা ২কাপ

১৪.ময়দা – ৩.৫ কাপ

১৫.পাপড়িকা গুরা- ১টেবিল চামচ

১৬.সাদা গোল মরিচ গুঁড়া – ১টেবিল চামচ

১৭.মরিচ গুরা-১/২ টেবিল চামচ

১৮.লবণ – স্বাদমতো বা ১ টেবিল চামচ

১৯.তেল

প্রণালিঃ

চিকেন ফ্রাই করার জন্য ১০পিস চিকেন নিয়ে নিবেন। প্রায় ১কেজি মাংস নিবেন। লেগ,থাই, উইংস সব নিয়ে নিবেন। চামড়া সহ নিতে হবে। চিকেন এর মধ্যে দিয়ে দিবেন ১ টেবিল চামচ আদা বাটা ও ১ টেবিল চামচ রসুনবাটা। এবং নিয়ে নিবেন ২ টেবিল সয়া সস,১ টেবিল চামচ ফিশ সস, ১ চা চামচ লাল মরিচের গুঁড়ো, ১/২ চা চামচ লবণ, ১ চা চামচ কালো গোল মরিচ গুঁড়া, হাফ টেবিল চামচ জিরা/মিস্কড হার্বস নিয়ে নিবেন। এবার ভালোকরে মাখিয়ে নিতে হবে। মেরিনেট করা মাংস টা সারা রাত বা সময় না থাকলে ১ঘন্টা রেখে দিতে হবে। সারা রাত মেরিনেট করলে অবশ্যই ফ্রিজে নরমাল চেম্বারে রাখতে হবে। এবার ১ ঘন্টা ঢাকনা দিয়ে ঢেকে দিতে হবে।

এবার অন্য এক বাটিতে ১ কাপ নরমাল তাপমাত্রায় থাকা ফুল ক্রিম দুধ নিয়ে নিবেন। দুধ কাঁচা হতে হবে। এর মধ্যে দিয়ে দিবেন ১ টেবিল চামচ সাদা ভিনেগার বা লেবুর রস। একটু মিশিয়ে এটিকে ২০মিনিট ঢাকনা দিয়ে ঢেকে রাখবেন। অন্য এক বাটিতে একটি রুম টেম্পারেচারে থাকা ১টি ডিম নিবেন। এবার ডিমটা খুব ভালো করে ফেটে নিবেন। ২০মিনিট পর বাটার মিল্ক তৈরি হয়ে গেলে এতে ডিমটি দিয়ে দিবেন। এবার ভালোমত নাড়িয়ে মিশিয়ে নিবেন। এবার শুকনো উপকরণ অন্য বাটিতে চেলে নিবেন।প্রথমে নিয়ে নিবেন ১/২কাপ কর্ণফ্লাওয়ার, সাড়ে ৩কাপ ময়দা। এবার এটা ভালো করে চেলে নিবেন। এটা আগে থেকে চেলে রেখে দিলে হবেনা। ইন্সট্যান্ট চালতে হবে। এবার এতে দিয়ে দিতে হবে ১টেবিল চামচ পাপড়িকার গুঁড়া, ১ চা চামচ সাদা কালো গোল মরিচ গুঁড়া/ কালো গোল মরিচ গুঁড়া, ১/২টেবিল চামচ লাল মরিচের গুঁড়ো ও ১ টেবিল চামচ পরিমাণ লবণ।

এবার সবকিছু ভালো করে মিশাতে হবে। একটু সময় নিয়ে করতে হবে। এবার ১ঘন্টা পর চিকেন টা আবার ভালমতো হাত দিয়ে নাড়িয়ে মাখিয়ে ১ টি ১ টি করে তা ময়দার মধ্যে কোটিং করে নিতে হবে। এটি হাত দিয়ে চেপে চেপে ভালোমত চিকেনে লাগিয়ে নিতে হবে। একটু সময় নিয়ে চেপে চেপে ভালোমত কাজটা করতে হবে। এবার ময়দা মাখানো চিকেন বাটার মিল্কে চুবিয়ে সেটা আবার ময়দায় দিতে হবে। কিন্তু চারপাশে ভালোমতো বাটার মিল্ক লাগিয়ে নিতে হবে তার আগে। এবার ময়দায় আবার চিকেন পিস টি ভালোমতো ময়দা লাগিয়ে কোর্ট করে নিতে হবে। এবার চিকেন টা ঝারা দিয়ে আলগা ময়দা ফেলে দিতে হবে। এভাবে একে একে সবগুলো চিকেন কোর্ট করে নিয়ে ভাজতে হবে। ডুবো তেলে ভাজতে হবে। এখন একটি প্যানে তেল দিয়ে তার উপর চালনি দিয়ে দিবেন। KFC এর চিকেন এর জন্য তেল ৩৫০° ফারেনহাইট তাপমাত্রায় বা ১৭৭° সেলসিয়াস এ হলে তখন বুঝতে হবে যে তেল রেডি। এগুলো না থাকলে তখন ১টি কাঠি চুবিয়ে তাতে বুদবুদ উঠা শুরু হলে বুঝবেন যে তেল গরম হয়ে গেছে। এবার খুব সাবধানে ১টি ১টি করে গরম তেলে চিকেন দিয়ে দিতে হবে। চিকেন গুলো যাতে পুড়ে না যায় তাই জালি ব্যবহার করবেন। এটা ব্যবহার না করলেও চলবে।

খেয়াল রাখতে হবে তেলের তাপমাত্রা বেশি কমে না আসে। পুরো টা সময় চিকেন ৩২০° ফারেনহাইট বা ১৬০° সেলসিয়াস এ ভাজতে হবে। এ ক্ষেত্রে চুলার হিট প্রথমে ফুল হিটে দিয়ে পরে মিডিয়াম হিটে দিলেই চলবে। এবার টাইমার সেট করবেন।চিকেন টা ভাজতে হবে ৮-১০মিনিট। মোটামুটি ৫ মিনিট পর চিকেন একটু উল্টিয়ে পাল্টিয়ে দিবেন। চিকেন ৮ মিনিট বা সর্বোচ্চ ১০ মিনিট ভাজা যাবে। এবার KFC স্টাইলে চিলিসস বা টমেটো সস দিয়ে চিকেন ফ্রাই পরিবেশন করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: