বেগুনের নানারকম পুষ্টিগুণ

নামটা বেগুন। তাই বলে কি বেগুনের কোনই গুন নেই। আসলে, নাম যা-ই হোক না কেন, বেগুনের কিন্তু অনেক গুন। লম্বা বেগুন, গোল বেগুন, সবুজ বেগুন, বেগুনী বেগুন, সবগুলোই কিন্তু খেতে বেজায় মজা। বেগুন ভাজার ম-ম গন্ধে জিভে পানি আসেনি এমন মানুষ একটাও খুঁজে পাওয়া যাবে না।

e0a6ace0a787e0a697e0a781e0a6a8-7820966

শুধু খেতে যে মজা তাই নয় বরং বেগুনের আছে নানা খাদ্যগুন। চলুন জেনে নেই বেগুনে কি কি পুষ্টিগুণ আছেঃ

• বেগুন উচ্চমানের অ্যান্টি অক্সিডেন্ট এবং ফাইবার সমৃদ্ধ, যা শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থ বের করে দেয়। কোলন ক্যান্সারের আক্রমণ ঠেকাতে বেগুন অতুলনীয়।
• বেগুনে আছে পর্যাপ্ত ফাইবার যা খিদা কমাতে সাহায্য করে। তাই যারা, কিছুক্ষন পর পরই ক্ষুধা অনুভব করেন। তাঁরা বেগুন খেতে পারেন। এর ফলে উল্লেখযোগ্যভাবে ওজন কমবে।
• বেগুনে আছে ভিটামিন বি৬ ও ফ্লাভোনয়েডস যা হার্টের রোগ প্রতিরোধ করে হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি কমায়। এছাড়াও বেগুনে প্রচুর অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট থাকায় হার্টের ধমনী ও শিরা-উপশিরা গুলো ভালো থাকে।
• বেগুনে পটাশিয়াম ও অ্যান্থোসায়ানিন আছে যার ফলে রক্তচাপ স্বাভাবিক থাকে।
• বেগুনে কার্বোহাইড্রেট কম কিন্তু ফাইবার বেশি থাকায় ডায়বেটিক রোগীরা অনায়াসে বেগুন খেতে পারেন। এমনকি বেগুন খেলে রক্তে শর্করার পরিমাণও ঠিক থাকে।
• বেগুনে আছে ক্লোরজেনিক নামের শক্তিশালী অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট যা রক্তের খারাপ কোলেস্টোরলের পরিমাণ কমিয় দেয়।
• বেগুনের পিচ্ছিল পদার্থ ফাইটোনিউট্রিন্টস মগজের কোষগুলোকে সুস্থ রাখে।
• প্রচুর পরিমানে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট ও পানি থাকার ফলে বেগুন খেলে ত্বক সজীব ও উজ্জ্বল থাকে।
• প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি থাকায় ব্যাক্টেরিয়া প্রতিরোধ করতেও দারুন কার্যকরী।
• ত্বকের ক্যান্সারের আশঙ্কা আশ্চর্যজনকভাবে কমিয়ে দেয় এই সবজিটি।
• ত্বকের শুষ্কতা কমিয়ে নরম ভাব এনে দেয়।
• চুলের উজ্জ্বল ও ঢেউ খেলানো ভাব এনে দেয়, এবং চুলকে মসৃণ ও ঘন কালো করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *